আজ চতুর্থ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস

চতুর্থ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস আজ (২১ জুন)। বিশ্বের অন্যান্য দেশের সঙ্গে বাংলাদেশেও দিবসটি পালিত হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার সকাল ৭টায় বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে যোগ অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। বিশেষ অতিথি ছিলেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট বীরেন শিকদার। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের বলেন, যোগ ব্যায়াম করলে শরীর ও মন ভালো থাকবে। টেনশন দূর হবে। ঈর্ষা কাতরতা থাকবে না। মানসিক যন্ত্রণা দূর হবে।

তিনি বলেন, দেশে মাদকের হিংস্র ছোবল দেখা দিয়েছে। এই মাদকের বিরুদ্ধে শক্তিশালী অবস্থান নিতে পারে যোগ ব্যায়াম। যোগব্যায়ামের ফলে তরুণ ও কর্মক্ষম মানুষের মধ্যে কর্মচাঞ্চল্য ফিরে আসতে পারে বলেও জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর একটি ভিডিও বার্তা প্রচার করা হয়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে যোগ সেশনের আয়োজন করা হয়। যোগ সেশন পরিচালনা করেন যোগ প্রশিক্ষক মাম্পী দে। অনুষ্ঠানে খ্যাতিমান খেলোয়াড়, অভিনেতা, গায়ক ও ঢাকায় অবস্থিত বিভিন্ন মিশনের কূটনীতিকরা অংশগ্রহণ করেন।

এদিকে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামের যোগ অনুষ্ঠানটি ছিল সবার জন্য উন্মুক্ত। এতে অংশগ্রহণকারীরা বিনামূল্যে যোগ ম্যাট, টি-শার্ট, উপহার সামগ্রী পেয়েছেন। এছাড়া অনুষ্ঠানে লাকি ড্রয়ের মাধ্যমে পুরস্কার দেয়া হয়। পুরস্কারের মধ্যে ছিল একটি টাটা টিয়াগো গাড়ি, একটি বাজাজ মোটরসাইকেল, ভারতে ভ্রমণ প্যাকেজ, দু’জনের দিল্লি ট্রিপ, ঢাকায় পাঁচ তারকা হোটেলে দু’জনের থাকার সুযোগ ইত্যাদি।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সাল থেকে ভারতীয় হাইকমিশন বাংলাদেশে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস পালন করে আসছে।

২০১৪ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘে ভাষণ দেয়ার সময় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ২১ জুন আন্তর্জাতিক যোগ দিবস হিসেবে পালন করার প্রস্তাব দেন। সেই বছরই ১১ ডিসেম্বর জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদ ২১ জুন আন্তর্জাতিক যোগ দিবস হিসেবে ঘোষণা দেয়া হয়। বাংলাদেশও দিবসটি পালনের পক্ষে সমর্থন দেয়।

image_printপ্রিন্ট

শেয়ার

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।